২০১৫-১৬‘র অ্যাডভান্স বুকিং

1166

manashiকারও পছন্দ অ্যাকশন মুভি, তো কারও লাভস্টোরি। কেউ বা পছন্দ করেন থ্রিলার আবর কেউ সিরিয়াস মুভি। তবে নাম দেখে বোঝা দায় কোনটি কেমন গোছের সিনেমা। তাই এই তালিকায় তোমাদের জন্য রইল এবছরের আপকামিং ছবির মোটামুটি একটা আইডিয়া। সেই সঙ্গে মুক্তির দিনও। যাতে আগে ভাগেই প্ল্যানটা সেরে ফেলতে পারো কখন কোন সিনেমাটি দেখবে তুমি।  লিখলেন মানসী সাহা৷

দৃশ্যম:
মুক্তির দিন: ৩১ জুলাই।
কাস্ট: অজয় দেবগণ, টাবু ও শ্রিয়া
‘দুনিয়া উসে মতলবি কহে ইয়া খুদর্গাজ’- নিজের পরিবারের খুশির জন্য, তাঁর মতে কোন কিছুই খারাপ কাজ নয়। তা সে কাউকে খুন করা হোক, আর কারও জীবন উদ্ধার। ২০১৩ সালে মুক্তি প্রাপ্ত মালায়ালাম ছবির রিমেক “দৃশ্যম”। এটি পুরোপুরি ‘থ্রিলার’ বেস সিনেমা। যেখানে মূল চরিত্রে অভিনয় করেছেন অজয় দেবগণ ও টাবু। এখানে ক্লাস ফোর পাশ একজন গ্রাম্য মানুষের চরিত্রের অভিনয় করেছেন অজয়। বউ ও দু’কন্যা নিয়ে তাঁর সুখের সংসার। অজয় তাঁর পরিবারের জন্য এমন কিছু নেই যা করতে পারে না। আর এই চেষ্টাই হয়ে দাঁড়ায় এই পরিবারের কাল। ছবিতে একজন পুলিশ অফিসারের ভূমিকার রয়েছেন টাবু।

drishyam

মানঝি দ্য মাউটেন্টম্যান:
মুক্তির দিন: আগস্ট ২১
কাস্ট: নওয়াজউদ্দিন সিদ্দিকি ও রাধিকা আপ্তে
এক প্রেমের কাহিনি। ‘যব তাক তোরেগা নেহি তব তাক ছোড়েগা নেহি’ হ্যাঁ এই প্রেমের এতটাই জোর যে পাহাড় ভেঙে সমতল করার ক্ষমতা রাখে। এই ছবিতে রাধিকার বিপরীতে দেখা যাবে নওয়াজউদ্দিন সিদ্দিকিকে। নাওয়াজই সেই মাইন্টেন ম্যান যে পাহাড় ভেঙে আত্রি ও ওয়াজির গঞ্জের মধ্যে একটি রাস্তা তৈরি করে। কিন্তু কেন? তা জানতে এখনও দেরি করতে হবে ছবি মুক্তির দিন পর্যন্ত। তবে কোন রূপকথা কাহিনি নয়, সত্য ঘটনা অবলম্বে তৈরি এই ছবিটি।

manjhi

ব্রাদার্স:
মুক্তির দিন: আগস্ট ১৪
কাস্ট: সিদ্ধার্থ মালহোত্রা, অক্ষয় কুমার, জ্যাকলিন ও জ্যাকি স্রফ
সিল্কের কথা ধরে, মুভি হিট করার ফরমুলা যদি হয় শুধু ইন্টারনেইমেন্ট, ইন্টারনেইমেন্ট ও ইন্টারনেইমেন্ট। তাহলে করণ মালহোত্রার মূলমন্ত্র এখানে অ্যাকশন, অ্যাকশন আর অ্যাকশন। ডেভিড (অক্ষয় কুমার) আর মন্টি (সিদ্ধার্থ মালহোত্রা) দুই ভাই-এর কাহিনি ‘ব্রাদার্স’। ডেভিড পেশায় ফিজিক্সের টিচার। কিন্তু, অসুস্থ মেয়েকে সারিয়ে তুলতে টাকার প্রয়োজনে চাকরি ছেড়ে সে ফুল টাইম ফাইটার হতে চায়। অন্যদিকে মন্টিকে দেখিয়েছে একজন ফাইটার হিসেবেই। যার লড়াই ভাইয়ের সঙ্গে।

brother's
ফ্যান্টম:
মুক্তির দিন: আগস্ট ২৮
কাস্ট: ক্যাটরিনা, সইফ
মুম্বই্য়ের ২৬/১১-র জঙ্গি হানা নিয়েই কবীর খানের আগামী ছবি ‘ফ্যান্টম’। ২০০৮ সালের ২৬ নভেম্বর নিঃসন্দেহে পৃথিবীর বুকে একটা কালো দিন! মুম্বই কাণ্ড নিয়েই গল্প বুনেছে এস হুসেন জাইদি। জাইদি-র লেখা ‘মুম্বই অ্যাভেঞ্জার্স’-কে অবলম্বন করে ‘ফ্যান্টম’ ছবিটা বানিয়েছেন পরিচালক কবীর খান। কাহিনি অনুযায়ী, মুম্বইয়ে হানার পাঁচ বছর পরে এক অবসরপ্রাপ্ত আর্মি অফিসার ঘটনার প্রতিশোধ নিতে উদ্যোগী হয়। তার উদ্যোগে এক প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত দল সারা পৃথিবী ঘুরে একে একে এই জঙ্গি হানার সঙ্গে জড়িয়ে থাকা অপরাধীদের হত্যা করে। এই আর্মি অফিসারের চরিত্রে রয়েছে নাবাব।
phantom
ওয়াজির:
মুক্তির দি: সেপ্টেম্বর ১১
কাস্ট: ফারহান আখতার, অমিতাভ ও নীল নীতিন মুকেশ
“খেল খেল মে, খেল খেল কে, খেল আ জায়েগা……”  আরও একবার চ্যালেঞ্জিং চরিত্রে অমিতাভ। এই ছবিতে পক্ষাঘাত গ্রস্ত এক দাবাড়ুর চরিত্রের রয়েছেন বিগ-বি। ফারহান রয়েছে পুলিশ অফিসার ও নীল নীতিন মুকেশ ভিলেনের চরিত্রে। এককথায় ভরপুর অ্যাকশন, গান, ফাইট আর দাবায় ঠাসা “ওয়াজ়ির”।
wazir
প্রেম রতন ধন পায়ো:
মুক্তির দিন: নভেম্বর ১১
কাস্ট: সোনম কাপুর, সলমন খান ও অনুপম খের
সাওরিয়া’ –এর পর আবার এই ছবিতে সলমনের বিপরীতে অভিনয় করতে দেখা যাবে সোনম কাপুরকে। এটি একটি রোম্যান্টিক প্রেমের গল্প।
prem-ratan-dhan-pao
তামাশা:
মুক্তির দিন: ২০১৬
কাস্ট: রনবীর কাপুর ও দীপিকা পাড়ুকোন
বলিঅন্দরের খবর, রনবীর-দীপিকার প্রেম তামাশাকে কাজে লাগিয়ে  তৈরি ইমতিয়াজের ‘তামাশা’। কিন্তু প্রথমে ‘উইন্ডো সিট’ নাম নিয়েই শুটিং শুরু করেছিলেন ইমতিয়াজ। তবে মাঝপথে হঠাৎই নামটা পরিবর্তন করে ‘তামাশা’ রাখেন পরিচালক। ইমতিয়াজের কথায়, ‘গল্পের সঙ্গে তামাশা নামটা বেশি ভাল যায়। কারণ ছবির গল্প যেমন রয়েছে কমেডির ছোঁয়া, তেমনি রয়েছে অফুরন্ত প্রেম। দীপিকা-রনবীরের রিয়েল লাইফ ক্রাইসিসকে মাথায় রেখেই ছবির গল্প ও নামটা ঠিক করা হয়েছে’।

tamasha

দিলওয়ালে:
মুক্তির দিন:ডিসেম্বর ১৮
কাস্ট: শাহরুখ খান, কাজল, বরুন ধাওয়ান ও কীতি সোনানা
কাজলের ‘কালে কালে আঁখে…’র প্রেম আরও একবার পড়তে চলেছে বলিউডের ‘বাজিগর’। পরিচালক রোহিতের আগামী ছবি ‘দিলওয়ালে’-তে ধরা পড়তে চলেছে রাজ-সিমরণের প্রেম-কাহিনি। এটি কোন অ্যাকশন মুভি নয় ইমোশনাল মুভি।
dilwale
বাজিরাও মস্তানি:
মুক্তির দিন: ডিসেম্বর ২৫
কাস্ট: রণবীর সিং, দীপিকা পাডুকোন ও প্রিয়াঙ্কা চোপড়া
এ ছবিতেও আছে ‘রাম লীলা’ জুটি৷ আছেন  রণবীর সিং ও দীপিকা পাড়ুকোন৷ তবে এযাবৎ তাঁদের যেভাবে দেখা গিয়েছে, এ ছবিতে দেখা যাবে তার থেকে একদম অন্যরকম ভাবে৷ ছবিতে  আছেন প্রিয়াঙ্কা চোপড়াও৷ রণবীর এখানে এক মারাঠ পেশোয়ার ভূমিকায়৷ অন্যদিকে দীপিকা হয়েছেন কুইন মস্তানি৷ প্রিঙ্কাকে দেখা যাবে কাশীবাইয়ের ভূমিকায়৷ ঐতিহাসিক প্রেক্ষাপটেই আখ্যানকে সমসাময়িক করে তুলেছেন সঞ্জয়৷
baji-rao